1. liton@somoyerbarta24.net : জাগরন বার্তা২৪ ডটকম ডেস্কঃ : জাগরন বার্তা২৪ ডটকম ডেস্কঃ
  2. admin@codeforhost.com : News Desk :
"শোকাবহ ১৫ই আগষ্ট ও আমাদের চেতনা" | জাগরন বার্তা
শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০, ০৮:৫৪ অপরাহ্ন
১২ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম :
দৌলতপুরে আসছে হাফীজুর রহমান কুয়াকাটা সাটু‌রিয়ার দিঘু‌লিয়া ইউনিয়‌নের এফ‌পিআইয়ের বিরু‌দ্ধে অ‌নিয়‌মের অ‌ভি‌যোগ নাগরপুরে তিন সন্তানের জননীর রহস্যজনক মৃত্যু দৌলতপুরে চকমিরপুর বঙ্গনূর ক্রীড়া সংঘের আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত রাণীনগরে যুবলীগের ৪৮ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন নাগরপুরে প্রেমিক প্রেমিকাসহ পালাতে গিয়ে সড়ক দূর্ঘটনায় ৩ জন নিহত দৌলতপুরে হাডুডু খেলা অনুষ্ঠিত সেমিস্টার ফি মওকুফ সহ ৩ দফা দাবিতে জাককানইবি ছাত্রলীগের স্বারকলিপি মুহাম্মদ (সা.)-এর ব্যঙ্গচিত্র প্রদর্শন করায় নাগরপুরে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ সভা নওগাঁ পৌরসভার ৯ নাম্বার ওয়ার্ডকে নতুন রুপে গড়ে তোলার প্রতিশ্রুতি কাউন্সিলর প্রার্থী মারুফের

“শোকাবহ ১৫ই আগষ্ট ও আমাদের চেতনা”

রিপোর্টার: মো. আরাফাত রহমান কাঃনঃইঃবিঃপ্রতিঃ
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ১৫ আগস্ট, ২০২০
  • ১৯২ বার পাঠিত
received 301726967817037

দেশব্যাপী পালিত হয়েছে এবার অন্যরকম এক শোক দিবস । করোনা প্রকোপে এমনিতেই নিথর গোটা দেশ । তার উপর আবার দেশে ঘটে যাচ্ছে একের পর এক হত্যাকান্ড ও নানা অঘটন । সারা দেশ যখন মেজর সিনহা হত্যাকান্ডে শোকে স্তব্ধ । ঠিক তখনই আমাদের দোরগোড়ায় উপস্থিত হয়েছে ১৫ই আগষ্ট । অর্থাৎ জাতীয় শোক দিবস ।
বাঙ্গালী জাতীর অন্যতম একটি শোকাবহ দিন ১৫ই আগষ্ট । এদিন আমরা হারিয়েছি হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে । কতিপয় বিপথগামী কিছু সেনাসদস্য, দেশী-বিদেশী ও নিজ দলের অভ্যন্তরীন কিছু সুযোগ সন্ধানী অমানুষের হাতে নির্মমভাবে সপরিবারে নিহত হন শেখ মুজিবুর রহমান । বাঙ্গালী জাতি সেদিন হারিয়েছে তাদের মহান এক নেতাকে , হারিয়েছে তাদের স্বাধীনতার মহা নায়ককে , হারিয়েছে এক দেশপ্রেমিক রাষ্ট্র প্রধানকে । আজও এই হারানো স্বৃতি ভূলতে পারেনি বাঙ্গালী জাতি । তাই এই মহান নেতার স্বরণে প্রতিবছর ১৫ আগষ্ট পালিত হয় এই জাতীয় শোক দিবস ।
শোক দিবস আসলে কি ? বলতে গেলে এটি আমাদের জাতীয় চেতনার অন্যতম একটি অধ্যায় , কিন্তু কেন? প্রতিবছর এই দিনটি আমাদের কি বার্তা দেয় ? আমরা কি আজও অর্জন করতে পেরেছি শোক দিবসের প্রকৃত শিক্ষা ?
বাস্তব সত্য হলো এই , ১৯৭৫ সালের সেই ভয়াল কালো রাত্রির পর আজ এত বছর কেটে গেলেও আমরা জানি না তার প্রকৃত ইতিহাস । আমরা ঠিক – সঠিক ভাবে আজও বলতে পারি না যে , সেদিন কাদের স্বড়যন্ত্রে নিহত হয়েছিল বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান । কেন এবং কোন লোভে নিজ দলেরই কিছু স্বার্থান্বষীদের প্রত্যক্ষ মদদে তাকে হত্যা করা হয়েছিল । পরদিন সকালে কারা বঙ্গবন্ধুকে হত্যার ঘটনাটি রেডিওতে সম্প্রচার করেছিল এবং সারাদেহে কারফিউ জারি করেছিল ।
অধিকাংশ মানুষকেই এ বিষয়ে কিছু জিজ্ঞেস করলে তারা তেমন সুনির্দিষ্ট কোন উত্তর আপনাকে দিতে পারবে না । এর চাইতে শোকের বিষয় আর কি হতে পারে ? যে জাতি নিজ ইতিহাস জানে না , তারা এই শোক দিবসের তাৎপর্য বুঝবে কি করে ? যে জাতি আত্মপরিচয় সম্পর্কে সচেতন নয়, সে জাতি কোনদিনও মাথা উঁচু করে বাঁচতে পারে না । দুঃখ জনক হলেও এটিই বাস্তব যে , আমরা এখনো ১৫ আগষ্ট সম্পর্কে খুব বেশী কিছু জানি না । ছোট থেকেই পত্র পত্রিকা , মেগাজিন অথবা পাঠ্যপুস্তক গুলোতে আমরা যে ইতিহাস পড়েছি তার বেশীর ভাগই রাজনৈতিক । এগুলোতে প্রকৃত সত্যটিকে যথার্থভাবে তুলে ধরা হয় নি । ১৫ আগষ্টের মতো একটি হৃদয় বিদারক ঘটনার চেতনা নিয়ে আজও রাজনীতি করা হয় । আজও এই দিবসটি পালনে আমাদের মাঝে রাজনৈতিক বিভাজন লক্ষ করা যায় । এই বিষয়টি নিয়ে আজও আমাদের মাঝে মত পার্থক্য লক্ষ করা যায় । দল মত নির্বিশেষে এই দিবসটি উৎযাপনে আজও এক শ্রেণীর মানুষের অনীহা লক্ষ করা যায় । এর চেয়ে পরিতাপের বিষয় আর কি হতে পারে ?
বঙ্গবন্ধু একজন দেশপ্রেমিকই শুধু ছিলেন না । তিনি ছিলেন একজন সৎ , সাহসী ও ন্যায় নীতি পরায়ণ মানুষ । অন্যায়কে তিনি সহ্য করতে পারতেন না । অন্যায় ও অসততার প্রতি আপোষহীন মনোভাবই ছিল বঙ্গবন্ধু নিহত হওয়ার অন্যতম কারণ । প্রদীপ, লিয়াকত ও নন্দলালের দল তাকে সহ্য করতে পারতো না বলেই অত্যন্ত নির্মমভাবে নিহত হতে হয়েছিল তাকে । আজ মেজর সিনহাকে যারা হত্যা করেছে, ঠিক তাদের মতোই একটি বাহীনির কিছু সদস্যের হাতে নিহত হয়েছিলেন বঙ্গবন্ধু ।
বঙ্গবন্ধু নিহত হওয়ার পর আজ ৪৫ বছর পেরিয়ে গেছে । কিন্তু আজও বাংলার মাটি থেকে বিলুপ্ত হয়ে যায়নি মেজর ডালিম ও খন্দকার মুশতাকের দল । প্রদীপ – লিয়াকতের নাম ধারন করে আজও তারা আমার বাংলার মানুষকে হত্যা করছে । আজও অসংখ্য মায়ের বুক খালি হচ্ছে । আজও অত্যাচারিত মানুষের আর্তনাদে – বাংলার আকাশ ভারী হচ্ছে । আজও ডালিম-মুশতাক-প্রদীপ-লিয়াকতের হাতে মানুষ জুলুম নির্যাতনের শিকার হচ্ছে ।
আসুন , আজকের শোক দিবসে উজ্জীবিত হই জাতীয় মুক্তির চেতনায় । ধর্ম-বর্ণ-জাতি-গোত্র মিলে সকলে ঐক্যবদ্ধ হয়ে , প্রদীপ-লিয়াকত’দের বিরুদ্ধে দুর্বার প্রতিরোধ গড়ে তুলি।

Facebook Comments

লাইক দিয়ে সবার আগে. সব খবর এর আপডেট

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

আমাদের ফেসবুক পেজ

© All rights reserved © 2020 JagoronBarta24.com
Theme Customized By codeforhost.Com
codeforhost-somoyerba149